Main Menu
শিরোনাম
সিলেটে আরও ১৫ করোনা রোগী শনাক্ত, সুস্থ ২১         এসএসসি ২০০৩ ব্যাচের পূর্মিলনী অনুষ্টিত         সিলেটে আরও ২৫ জনের করোনা শনাক্ত, সুস্থ ১৫         দক্ষিণ সুরমার বলদীতে পিঠা উৎসব পালন         গোলাপগঞ্জে এগিয়ে চলছে আশ্রয়ণ প্রকল্পের কাজ         যুক্তরাজ্য থেকে সিলেটে আসলে ৪দিনের কোয়ারেন্টিন         সিলেটে আরও ১৫ জনের করোনা শনাক্ত, মৃত্যু ১         পৌষ সংক্রান্তিতে কমলগঞ্জে জমে উঠেছে মাছের মেলা         গোলাপগঞ্জে টিলা কাটার সময় মাটিচাপায় শ্রমিক নিহত         বন্দুক পরিষ্কার করার সময় গুলিতে শিশু নিহত         বিশ্বনাথে বাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ২         সিলেটে এসে মঞ্চে উঠতে পারেননি মামুনুল হক        

দেশে জুন মাসে ধর্ষিত ১০১ নারী ও শিশু

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: করোনা ভাইরাসের মধ্যে জুনের এক মাসেই ১০১ জন নারী ও কন্যাশিশু ধর্ষণের ঘটনাসহ মোট ৩০৮ জন নারী ও কন্যাশিশু নির্যাতনের শিকার হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ।

বুধবার (১ জুলাই) গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানায় সংগঠনটি। বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের লিগ্যাল এইড উপ-পরিষদে সংরক্ষিত ১৪টি দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদের ভিত্তিতে এ তথ্য উঠে এসেছে।

বিবৃতিতে জানানো হয় পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদ অনুসারে ২০২০ সালের জুন মাসের মোট ৩০৮ জন নারী ও কন্যা নির্যাতনের শিকার হয়েছে। ধর্ষণের শিকার হয়েছে মোট ১০১ জন, তন্মধ্যে ধর্ষণের শিকার হয়েছে ৬৯ জন, গণধর্ষণের শিকার হয়েছে ২৫ জন, ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে ৭ জনকে।এছাড়া ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে ১৫ জনকে। শ্লীলতাহানির শিকার হয়েছে ৩ জন। যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছে ৬ জন। এসিডদগ্ধের শিকার হয়েছে ১ জন। অগ্নিদগ্ধের শিকার হয়েছে ৪ জন, তন্মধ্য অগ্নিদগ্ধের কারণে মৃত্যু হয়েছে ৩ জনের।

আরও জানায় অপহরণের ঘটনা ঘটেছে মোট ১৪ জন। পতিতালয়ে বিক্রি করা হয় ১জনকে। বিভিন্ন কারণে ৬২ জন নারী ও কন্যাশিশুকে হত্যা করা হয়েছে। যৌতুকের কারণে হত্যা করা হয়েছে ৫ জনকে। গৃহপরিচারিকা হত্যা করা হয়েছে ২ জনকে এবং ১ জন গৃহপরিচারিকার আত্মহত্যা করেছে।

যৌতুকের কারণে নির্যাতন করা হয়েছে ৭ জন। শারীরিক নির্যাতনের শিকার হয়েছে ১৯ জন। উত্ত্যক্ত করা হয় ৫ জনকে। বিভিন্ন নির্যাতনের কারনে ১৭ জন আত্মহত্যা করতে বাধ্য হয়েছে। ৩৪ জনের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। ফতোয়ার শিকার হয়েছে ১ জন। বাল্যবিবাহ হয়েছে ১ জন। এছাড়া অন্যান্যরা নানাভাবে নির্যাতনের শিকার হয়েছে ২ জন নারী ও শিশু।

0Shares





Related News

Comments are Closed