Main Menu
শিরোনাম
সিলেট জেলা মহিলা দলের পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন         শান্তিগঞ্জে কার খাদে পড়ে চালক নিহত, আহত ৪         গোলাপগঞ্জ উপজেলা বিএনপির কাউন্সিল সম্পন্ন         কমলগঞ্জে ঐতিহ্যবাহী চুঙ্গা পিঠা উৎসব         কমলগঞ্জে জলাশয় থেকে নারীর লাশ উদ্ধার         নবীগঞ্জে সিএনজির ধাক্কায় বৃদ্ধের মৃত্যু         শাবির ৩০০ শিক্ষার্থীকে আসামি করে পুলিশের মামলা         সিলেটে একদিনে করোনায় দুই শতাধিক রোগী শনাক্ত         রাষ্ট্রপতির কাছে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ‘খোলা চিঠি’         বড়লেখায় পান গাছের সাথে এ কেমন শত্রুতা         শাবি শিক্ষার্থীদের ওপর পুলিশি হামলার প্রতিবাদে সিকৃবিতে মানববন্ধন         শাবিতে পুলিশী হামলার প্রতিবাদ জানিয়েছেন প্রাক্তন ছাত্রনেতৃবৃন্দ        

সিলেটের ১৬ ইউনিয়নে ভোট গ্রহণ চলছে

বৈশাখী নিউজ ২৪ ডটকম: তৃতীয় ধাপে ইউপি নির্বাচনে সিলেট জেলার ১৬ ইউপিতে শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ চলছে। রোববার (২৮ নভেম্বর) সকাল ৮টা থেকে শুরু হয় ভোটগ্রহণ, চলবে একটানা বিকেল ৪টা পর্যন্ত। এসব ইউপিতে সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণের জন্য সবধরনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।

সিলেট জেলার তিন উপজেলার ১৬ ইউনিয়ন হচ্ছে- দক্ষিণ সুরমা উপজেলার সিলাম, লালাবাজার, জালালপুর, মোগলাবাজার ও দাউদপুর ইউনিয়ন। জৈন্তাপুর উপজেলার জৈন্তাপুর, চারিকাটা, দরবস্ত, ফতেপুর ও চিকনাগুল ইউনিয়ন এবং গোয়াইনঘাট উপজেলার ডুবারি, তোয়াকুল, নন্দিরগাঁও, ফতেপুর, লেংগুড়া ও রুস্তমপুর ইউনিয়ন।

এদিকে ভোটগ্রহণ সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে সম্পন্ন করতে এবার বাড়তি সতর্কতা গ্রহণ করেছে নির্বাচন কমিশন।

সিলেট জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শুকুর মাহমুদ জানান- সিলেটের ১৬টি ইউনিয়নের ১৫৪টি ভোটকেন্দ্রের প্রতিটিতে ভোটের দিন ৫ জন করে পুলিশ ও ১৭ জন করে আনসার সদস্য মোতায়েন থাকবে। সকল পুলিশ ২ জন আনসার সদস্যের সঙ্গে অস্ত্র থাকবে। বাকিদের সঙ্গে থাকবে লাঠি। এছাড়া স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অন্যান্য সদস্যরা কাজ করবে।

এছাড়া ভোটকেন্দ্র ছাড়াও নির্বাচনী এলাকায় দায়িত্ব পালন করবে পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি ও আনসার বাহিনীর মোবাইল এবং স্ট্রাইকিং ফোর্স।

জেলা নির্বাচন কমিশন অফিস জানায়- ভোটের দিন সিলেটের তিন উপজেলার প্রতিটিতে র‌্যাবের দু’টি করে মোবাইল ও একটি করে স্ট্রাইকিং টিম, প্রতিটি উপজেলায় বিজিবির দুই প্লাটুন সদস্য মোবাইল টিম ও এক প্লাটুন থাকবে স্ট্রাইটিং টিম হিসেবে। এছাড়াও সিলেটে এবার ভোটের দিন প্রশিক্ষিত আনসার বাহিনীর স্ট্রাইটিং টিম মোতায়েন করা হবে।

বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থার কথা উল্লেখ করে জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শুকুর মাহমুদ জানান- প্রতি উপজেলায় ভোটগ্রহণের আগের দু’দিন, ভোটগ্রহণের দিন ও ভোটগ্রহণের পরের দিন অর্থাৎ- মোট ৪ দিনের জন্য তিন উপজেলায় ৯ জন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ করা হয়েছে। এছাড়াও প্রতিটি উপজেলায় নিয়োগ করা হয়েছে একজন করে জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট। এছাড়া সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য নির্বাচন কমিশনসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষকারী বাহিনীর ৪টি সংস্থাও প্রস্তুত রয়েছে। শনিবার সন্ধ্যার পর থেকে পুলিশ, বিজিবি ও আনসার সদস্যরা নিজেদের দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রগুলোতে তাদের কার্যক্রম শুরু করেছে।

এর আগে শনিবার সন্ধ্যার আগেই কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রিসাইডিং অফিসার, পোলিং অ্যাজেন্টরাও নিজেদের কেন্দ্রে পৌঁছে গেছেন। শনিবার বিকেল থেকে কেন্দ্রগুলোতে পাঠানো শুরু হয় ব্যালট পেপার কালি ও সিলসহ প্রয়োজনীয় অন্যান্য সরঞ্জাম।

জেলা নির্বাচন কমিশন অফিস সূত্রে জানা গেছে- সিলেটের তিন উপজেলার ১৬ ইউনিয়নে মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ১০ হাজার ২৩২ জন। এর মধ্যে নারী ভোটার সংখ্যা ১ লাখ ৫০ হাজার ২৩৫ ও পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৫৯ হাজার ৯৯৭ জন।

এদিকে নির্বাচনে আওয়ামী লীগের ঘুম হারাম করে রেখেছে দলের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থীরা। এরই মধ্যে জেলার দক্ষিণ সুরমা উপজেলায় ৫ জন, জৈন্তাপুর উপজেলায় ১ জন ও গোয়াইনঘাট উপজেলায় আরও ৫ জন সহ মোট ১১ জন বিদ্রোহী প্রার্থীকে দল থেকে বহিষ্কার করেছে আওয়ামী লীগ।

0Shares





Related News

Comments are Closed