Main Menu
শিরোনাম
বিশ্বনাথে স্বেচ্ছাসেবক দল নেতৃবৃন্দের মধ্যে ফরম বিতরন         বিশ্বনাথে সাইফুলের ফাঁসির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল         ছাতকে ১০ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল         ছাতকে প্রতিবন্ধী তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে বৃদ্ধ গ্রেপ্তার         বিশ্বনাথে দুই হত্যা মামলার প্রধান আসামী সাইফুল গ্রেপ্তার         কোম্পানীগঞ্জে বজ্রপাতে দুইজনের মৃত্যু         গোলাপগঞ্জে গৃহবধূকে ধর্ষণ, যুবক গ্রেপ্তার         শান্তিগঞ্জে পানিতে ডুবে দুই চাচাতো বোনের মৃত্যু         কামাল উদ্দিন রাসেল’র উপর মামলা প্রত্যাহারের দাবি         বিশ্বনাথে ‘ব্লাকমেইল’ করে গৃহবধুকে ধর্ষণ, ধর্ষক আটক         দক্ষিণ সুরমা কলেজে শিক্ষার্থীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা         গোলাপগঞ্জে ফ্রি চক্ষু চিকিৎসা সেবা অনুষ্ঠিত        

১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবি

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: আগামী ১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সারা দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে না দিলে আমরণ অনশনের ঘোষণা দিয়েছেন রাজশাহীর শিক্ষার্থীরা।

শনিবার (২১ আগস্ট) বেলা ১১টার দিকে নগরীর সাহেব বাজার জিরো পয়েন্টে সংবাদ সম্মেলনে তারা এ ঘোষণা দেন।

সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলন থেকে তারা এ আল্টিমেটাম দেন। এ সময় রাজশাহীর বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

রাজশাহী কলেজের শিক্ষার্থী জিন্নাত আরা সুমুর সঞ্চালনায় লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন নর্থ বেঙ্গল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থী ইশতিয়াক আহমেদ।

শিক্ষার্থীরা বলেন, বাংলাদেশের মতো এত লম্বা সময় ধরে বিশ্বের কোনো দেশ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখেনি। অবিলম্বে সারা দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার দাবি জানাচ্ছি। তারা দাবি করেন, ১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার প্রজ্ঞাপন জারি না করলে তারা সাহেব বাজার জিরো পয়েন্টে আমরণ অনশনে বসবে।

শিক্ষার্থীরা বলেন, করোনার সংক্রমণ শুরুর পর গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। এর মধ্যে বিভিন্ন সময়ে দফায় দফায় সবকিছুই খুলেছে। কিন্তু ১৬ মাস ধরে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা হয়নি। অজুহাত হিসেবে করোনা সংক্রমণকে বারবার দেখানো হচ্ছে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে সরকার অনলাইন শিক্ষার প্রচলন করে এবং দাবি করে, অনলাইন শিক্ষার মাধ্যমে প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষার ক্ষতি পুষিয়ে নেওয়া হচ্ছে। অথচ বাস্তবে সরকারের অনলাইন শিক্ষার নামে সব উদ্যোগ মুখ থুবড়ে পড়েছে। স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের জন্য টিভি চ্যানেল ও রেডিওসহ অন্যান্য সামাজিক প্ল্যাটফর্মে পাঠদানের উদ্যোগ শিক্ষার নামে প্রহসনে পরিণত হয়েছে।

মূলত করোনাভাইরাস সংক্রমণের পর থেকে গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। চলতি বছরের শুরুর দিকে সরকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার ব্যাপারে উদ্যোগ নিলেও সংক্রমণের ঊর্ধ্বগতির কারণে তা সম্ভব হয়নি। আর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কখন খুলবে তা যখন অনিশ্চিত, তখন শিক্ষকদের এমন ঘোষণা সামাজিক মাধ্যমে প্রশংসায় ভাসছে। পাশাপাশি এসব সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শিক্ষকদের এমন ঘোষণা অবিলম্বে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার আহ্বান জানাচ্ছেন নেটিজেনরা।

 

0Shares





Related News

Comments are Closed