Main Menu

জৈন্তাপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় বীমা কর্মকর্তার মৃত্যু

জৈন্তাপুর প্রতিনিধি: সিলেটের জৈন্তাপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত একটি বীমা কোম্পানির কর্মকর্তা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয়েছে। রবিবার (২২ জানুয়ারি) দুপুরে সিলেট-তামাবিল সড়কের ফেরিঘাট নামক স্থানে তৈয়ব আলী ডিগ্রি কলেজের সামনে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হন সজিব দে বিনয় (৩৫) নামের ওই বীমা কর্মকর্তা।

সিলেট মহানগরের একটি প্রাইভেট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার (২৩ জানুয়ারি) দুপুরে তিনি মারা যান।

সজিব দে সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার উপজেলার খাটখালি গ্রামের কবিন্দ্র কুমার দে’র ছেল। তিনি সিলেট মহানগরের পনিটুলা এলাকার পল্লবি-১৯ নং বাসায় পরিবার নিয়ে থাকতেন।

নিহতের ছোট ভাই পিন্টু দে জানান- তার বড় ভাই সজিব দে মেটলাইফ ইন্সুরেন্স কোম্পানির ইউনিট ম্যানেজার। রবিবার অফিসের কাজে তিনি তার এক সহকর্মীকে নিয়ে মোটরসাইকেলযোগে জৈন্তাপুর যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে তৈয়ব আলী ডিগ্রি কলেজের সামনে দুর্ঘটনার শিকার হন। দুজনকে রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখে দুই কলেজছাত্র তাদের উদ্ধার করে অটোকরিশাযোগে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে ভর্তি করেন। তবে সেখান থেকে রবিবার রাতে সজিব দে-কে সিলেট মহানগরের একটি প্রাইভেট ক্লিনিকে নিয়ে গেলে সোমবার দুপুরে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

এদিকে, কীভাবে এ দুজন দুর্ঘটনার শিকার হলেন তা কেউ দেখতে পাননি। দুর্ঘটনাকবলিত হয়ে তাদের গুরুতর আহত অবস্থায় রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখা যায়।

এ দুর্ঘটনায় আহত হন সজিব দে’র সঙ্গে থাকা রইছ মুনশি (৩৮)। তিনি মেটলাইফ ইন্সুরেন্স কোম্পানির অ্যাসোসিয়েট ম্যানেজার। রইছ মুনশি বর্তমানে ওসমানী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

 

0Shares





Related News

Comments are Closed