Main Menu
শিরোনাম
সিলেটে আরো ১৩ জনের করোনা শনাক্ত, সুস্থ ২০         সুনামগঞ্জে উদ্বোধনের আগেই ভেঙে পড়লো সেতু!         হবিগঞ্জে আ.লীগ প্রার্থী সেলিম বিজয়ী         সিলেটে দুর্ঘটনাস্থলে কাফনের কাপড় পড়ে অবরোধ, ৫ দাবি         সিলেটে দুই বাসের সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৮         সিলেটে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ৭         মাধবপুরে গার্মেন্টসকর্মীকে ধর্ষণ         শপথ নিলেন গোলাপগঞ্জ পৌর মেয়রসহ নির্বাচিত কাউন্সিলররা         রাজনগরে ৪০০ আ.লীগ নেতাকর্মীর নামে মামলা         কানাইঘাটে আ.লীগের লুৎফুর রহমান মেয়র নির্বাচিত         চুনারুঘাটে আ.লীগের রুবেল মেয়র নির্বাচিত         বিশ্বনাথে প্রতারণা মামলায় প্রবাসী কারাগারে        

দেশের ২৬০০ ইউনিয়ন পাচ্ছে দ্রুতগতির ইন্টারনেট

প্রযুক্তি ডেস্ক: দেশের ইউনিয়নগুলোতে দ্রুতগতির ইন্টারনেট সেবা দিতে সরকারের ‘ইনফো সরকার-৩’ নামের প্রকল্পটি শেষের দিকে। এখন প্রায় আড়াই হাজার ইউনিয়নে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সংযোগ আছে। ২ হাজার ৬০০ ইউনিয়ন সংযুক্ত হয়ে গেলে মে থেকে জুনের মধ্যে তা আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হবে।

৬৩টি জেলার ২ হাজার ৬০০ ইউনিয়নের ডিজিটাল সেন্টারে সরকার ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সংযোগ স্থাপনের কাজ করছে। ২ হাজার ৫৫০ ইউনিয়নে সরঞ্জাম বসেছে। সংযোগ দেওয়া হয়েছে ২ হাজার ৪৫০ ইউনিয়নে। এর মধ্যে মেহেরপুর জেলা বাদ রয়েছে।

বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল (বিসিসি) কর্তৃক জাতীয় তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি অবকাঠামো উন্নয়ন (ইনফো-সরকার ৩য় পর্যায়) শীর্ষক প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি বিভাগের অধীনে এর বাজেট প্রায় ২ হাজার কোটি টাকা।

এখানে চীনের ঋণ আছে ১ হাজার ২২৭ কোটি টাকা, যা সরঞ্জাম কেনায় ব্যয় হয়েছে। প্রকল্পের মেয়াদ ছিল জানুয়ারি ২০১৭ থেকে জুন ২০১৯ পর্যন্ত। পরবর্তী সময়ে মেয়াদ বাড়িয়ে ২০২০–এর জুন মাস পর্যন্ত করা হয়।

তবে করোনার কারণে সরকারের সব প্রকল্পের মেয়াদ বাড়ার ফলে এ প্রকল্পের মেয়াদও ২০২১ সালের জুন করা হয়। প্রকল্প কর্তৃপক্ষ বলছে, মেয়াদ বাড়লেও প্রকল্পের খরচ বাড়েনি।

ইনফো সরকার-৩ প্রকল্পে বিনা মূল্যে ব্যান্ডউইথ দিচ্ছে নেশনওয়াইড টেলিকমিউনিকেশন ট্রান্সমিশন নেটওয়ার্ক (এনটিটিএন) প্রতিষ্ঠান সামিট কমিউনিকেশনস এবং ফাইবার অ্যাট হোম। আগামী ২০ বছর এটা রক্ষণাবেক্ষণসহ দেখাশোনার কাজ চলবে সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগে। সংযোগ স্থাপন হয়ে গেলে দরপত্র আহ্বান করা হবে এর রক্ষণাবেক্ষণ কাজের জন্য।

প্রকল্প কর্তৃপক্ষ জানায়, বিসিসি ইনফো-সরকার ১ম পর্যায় ও ইনফো-সরকার ২য় পর্যায় প্রকল্প বাস্তবায়নের ধারাবাহিকতায় ইনফো-সরকার ৩য় পর্যায় প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। প্রথম পর্যায়ে জেলায় এবং দ্বিতীয় পর্যায়ে উপজেলায় সংযোগ স্থাপন করা হয়। ২ হাজার ৬০০ ইউনিয়ন ছাড়াও বাংলাদেশ পুলিশের বিভিন্ন পর্যায়ের এক হাজার অফিসে ভিপিএন (ভার্চ্যুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্ক) সংযোগ দেওয়া হচ্ছে।

0Shares





Related News

Comments are Closed