Main Menu

সাগর-রুনি হত্যা: তারিখ পেছাল ৭৬ বার

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: এনিয়ে ৭৬ বারের মতো পেছাল সাংবাদিক দম্পতি সাগর সারোয়ার ও মেহেরুন রুনি হত্যা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ায় তারিখ। পরবর্তী তদন্ত প্রতিবেদনের জন্য আগামী ২৯ ডিসেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

রোববার (২২ নভেম্বর) তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের দিন ধার্য থাকলেও তা জমা দেয়নি তদন্তকারী সংস্থা র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)। এই কারণে ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট রাজেশ চৌধুরী নতুন দিন ধার্য করেন। আদালতে সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন (জিআর) শাখা থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

আলোচিত এই হত্যা মামলায় রুনির বন্ধু তানভীর রহমানসহ মোট আসামি আট জন।

অন্য আসামিরা হলেন-বাড়ির নিরাপত্তারক্ষী এনাম আহমেদ ওরফে হুমায়ুন কবির, রফিকুল ইসলাম, বকুল মিয়া, মিন্টু ওরফে বারগিরা মিন্টু ওরফে মাসুম মিন্টু, কামরুল হাসান অরুণ, পলাশ রুদ্র পাল ও আবু সাঈদ। আসামিদের প্রত্যেককে একাধিকবার রিমান্ডে নেওয়া হলেও তাদের কেউই স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়নি।

উল্লেখ্য, ২০১২ সালের বছর ১১ ফেব্রুয়ারি রাতে রাজধানীর পশ্চিম রাজাবাজারে সাংবাদিক দম্পতি মাছরাঙা টেলিভিশনের বার্তা সম্পাদক সাগর সরওয়ার এবং এটিএন বাংলার জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রুনি তাদের ভাড়া বাসায় খুন হন। এরপরের দিন ভোরে তাদের ক্ষত-বিক্ষত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে মেহেরুন রুনির ছোট ভাই নওশের আলম রোমান শের-ই বাংলা নগর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

শের-ই বাংলা নগর থানার মাধ্যমে মামলাটির তদন্ত শুরু হলেও চারদিন পর এর তদন্তভার ঢাকা মহানগর ডিবি পুলিশকে দেওয়া হয়। দুইমাসেরও বেশি সময় তদন্ত করে ডিবি পুলিশ এর রহস্য উদঘাটন করতে পারেননি। এরপরে ২০১৪ সালের ১৮ এপ্রিল হাইকোর্টের নির্দেশে হত্যা মামলাটির তদন্তভার র‌্যাবের ওপর দেওয়া হয়।

0Shares





Related News

Comments are Closed