Main Menu

সিলেটে জেএমবি নেতা আজিজের আমৃত্যু কারাদণ্ড

বৈশাখী নিউজ ২৪ ডটকম: সিলেটের কদমতলী কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনালে সিরিজ বোমা হামলার মামলায় জামাআতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশের (জেএমবি) নেতা মাওলানা আব্দুল আজিজ ওরফে হানিফকে আমৃত্যু কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

রোববার (১৩ ডিসেম্বর) দুপুরে সিলেটের অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোমিনুন্নেসা এ রায় ঘোষণা করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আদালতের আইনজীবী অ্যাডভোকেট দেবব্রত চৌধুরী লিটন।

এর আগে সিলেটের কদমতলী বাস টার্মিনাল এলাকায় বোমা হামলার ঘটনায় দায়েরকৃত বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলার চার্জগঠন হয় ২০১৪ সালের ২৭ মে।

আদালত ও সংশ্লিষ্ট থানা সূত্রে জানা গেছে, ২০০৫ সালের ১৭ আগস্ট জেএমরি জঙ্গিরা সারাদেশের মতো সিলেটে ১৩টি, সুনামগঞ্জে পাঁচটি, হবিগঞ্জে পাঁচটি ও মৌলভীবাজারে পাঁচটিসহ মোট ২৯টি স্থানে বোমার বিস্ফোরণ ঘটায়। বোমা বিস্ফোরণের শব্দে কেঁপে ওঠে সিলেটের আদালতপাড়া, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়সহ জণগুরুত্বপূর্ণ এলাকা।

সেদিন সকাল ১১টা ১৫ মিনিটে সিলেট নগরীর আদালতপাড়া, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সিঁড়ির নিচ, শাহী ঈদগাহ, নয়াসড়ক, কদমতলী বাস টার্মিনাল, লামাবাজারের একটি নার্সারিসহ ১৩টি এলাকায় একসাথে ও একই সময়ে বোমার বিস্ফোরণ ঘটায় জঙ্গিরা।

এ সকল স্থানে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়লেও ওইদিনের বোমা হামলায় সিলেটে কেউ মারা যাননি। তবে এ বোমা হামলায় সিলেটের দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক বিপ্লব গোস্বামী এবং তার গাড়ি চালক, বিচারপ্রার্থী জনগণ, নার্সারি মালিক, পথচারীসহ ১৫ জন আহত হন।

পরবর্তীতে প্রতিটি বোমা হামলার ঘটনায় বিশেষ ক্ষমতায় বিস্ফোরক আইনে পৃথক মামলা করে পুলিশ। সিলেট বিভাগের চার জেলায় দায়ের করা হয় ২৯টি মামলা। এর মধ্যে বেশিরভাগ মামলারই বিচার কাজ শেষ হয়নি। অধিকাংশ মামলাই বর্তমানে সাক্ষ্যগ্রহণ পর্যায়ে রয়েছে। কিছু মামলা আদালতে এখনও বিচারাধীন রয়েছে। তাছাড়া সুনামগঞ্জের একটি মামলায় দুইজন জঙ্গিকে ১০ বছর করে কারাদণ্ড দেয়া হয়।

0Shares





Related News

Comments are Closed