Main Menu

দেশে স্বল্পমূল্যে বহনযোগ্য ভেন্টিলেটর উদ্ভাবন

প্রযুক্তি ডেস্ক : করোনায় গুরুতর শ্বাসকষ্টজনিত রোগীর চিকিৎসায় স্বল্পমূল্যে সহজে বহনযোগ্য ভেন্টিলেটর মেশিনের প্রটোটাইপ তৈরি করেছে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ইনোভেশন ল্যাব ও তড়িৎ প্রকৌশল বিভাগ।

রবিবার (১৭ মে) রাতে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ডেপুটি রেজিস্টার ও জনসংযোগ কর্মকর্তা সোহেল আহসান নিপু এই তথ্য জানান।

ভেন্টিলেটর মেশিনটি নির্মাণে নির্বাহী তত্ত্বাবধায়কের দায়িত্বে থাকা বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ইনোভেশন ল্যাবের প্রধান, প্রকৌশলী কাজী তাইফ সাদাত বলেন, ‘এ ভেন্টিলেটর মেশিনটিতে মেকানিক্যাল পাম্পের বদলে ইলেক্ট্রনিক পাম্প ব্যবহার করায় মেশিনটির রক্ষণাবেক্ষণ অনেক সহজ ও যান্ত্রিক ঘর্ষণজনিত ক্ষয় কম।’

প্রকৌশলী কাজী তাইফ সাদাত আরও বলেন, ‘মেশিনটি দিয়ে সুষম বায়ু প্রবাহের জন্য দুটি ডায়াফ্রাম পাম্প ব্যবহার করা হয়েছে যা থাইরিস্টর দ্বারা নিয়ন্ত্রিত। সম্পূর্ণ কার্যপ্রণালীটি মাইক্রো কন্ট্রোলারের দ্বারা নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘এ মেশিনটিতে রোগীর প্রয়োজন অনুযায়ী পাম্পের গতি, শ্বাস গ্রহণ ও শ্বাস ত্যাগের সময় নিয়ন্ত্রণ করা যায়। যার ফলে মেশিনটি শিশু ও বয়স্ক উভয় রোগীর ক্ষেত্রে ব্যবহার উপযোগী। ভবিষ্যতে মেশিনটির সাথে হার্টরেট পর্যবেক্ষণ যন্ত্র সংযোজন করা হবে যাতে রোগীর শ্বাসপ্রশ্বাসের প্রকৃতি নির্ণয় করা যায়।’

এছাড়া বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের মতামতের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় পরিমার্জন করে দেশীয় প্রযুক্তির এই স্বল্প মূল্যের যন্ত্রটি কোভিড ১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত মুমূর্ষু রোগীর চিকিৎসা কাজে বাবহার করা সম্ভব। আর এ লক্ষ্যে বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ইনোভেশন ল্যাব ও তড়িৎ প্রকৌশল বিভাগ ইতিমধ্যে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে বলেও জানান এই প্রকৌশলী। -ঢাকাটাইমস

0Shares





Related News

Comments are Closed