Main Menu

বিশ্বনাথে প্রতারণার ফাঁদে লাখ টাকা খোয়ালেন ব্যবসায়ী, আটক ১

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি : ডিজিটাল প্রতারণার ফাঁদে পড়ে প্রায় লাখ টাকা খুইয়েছেন সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার বিকাশ ব্যবসায়ী জামাল আহমদ। সংঘবদ্ধ চক্র প্রতারণার মাধ্যমে কয়েক দফায় লুটে নেয় তার এই টাকা।

এ ঘটনায় রবিবার (২২ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় আরিফুর রহমান আরিফ বিল্লাহ (৩৫) নামে প্রতারক চক্রের এক সদস্যকে আটক করে পুলিশে দিয়েছেন তিনি।

আটক আরিফ ময়মনসিংহ জেলার দুবাউরা থানার গিলাঘরা গ্রামের আবদুল বারিকের ছেলে এবং বিশ্বনাথ পৌরশহরের রাজনগর এলাকার অস্থায়ী বাসিন্দা।

প্রতারণার শিকার ব্যবসায়ী জামাল আহমদ জানান, গেল ২১ জানুয়ারি সন্ধ্যায় আমার দোকানে এসে আরিফ রকেট নাম্বার চেয়ে নেন। কিছুটা সময় পরেই দোকান কর্মচারীকে বলেন, আপনাদের নম্বারে আমার টাকা এসেছে। তখন দেখা যায়, ওই নাম্বারে হুবহু অফিসিয়াল পদ্ধতিতে ২৪ হাজার ৫ টাকার একটি ক্ষুদেবার্তা আসে। যেটি ছিল ভুয়া।

বিষয়টি বুঝতে না পেরে আমার দোকান কর্মচারী আরিফের হাতে টাকাগুলো হস্তান্তর করেন। তখন তিনি ২ হাজার টাকা রেখে বাকি টাকা ওই দোকান থেকেই প্রতারকচক্রের অন্য সদস্যদের বিকাশ নাম্বারে প্রেরণ করেন।

একই কায়দায় পরপর আরও ৩টি ভুয়া ক্ষুদেবার্তা পাঠিয়ে চারবারে ৯৮ হাজার টাকা হাতিয়ে নেন আরিফ। ওই টাকাগুলোও দোকান থেকে অন্য প্রতারকদের বিভিন্ন নাম্বারে পাঠান তিনি। এ সময় হ্যাক করে রাখা হয় আমার রকেট একাউন্টও। পরদিন ২২ জানুয়ারি বিষয়টি বুঝতে পেরে দোকানের সিসি ক্যামেরার ফুটেজে আরিফকে শনাক্ত করি। লিখিত অভিযোগ দিই থানায়। পরে ওইদিনই সন্ধ্যায় আরিফকে নিজেই আটক করে পুলিশে সোপর্দ করি।

বিশ্বনাথ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গাজী আতাউর রহমান বলেন, ‘অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্তপূর্বক এ বিষয়ে প্রায়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

0Shares





Related News

Comments are Closed