Main Menu
শিরোনাম
সিলেটের তিন উপজেলায় নেই সিএনজি ফিলিং ষ্টেশন         ডা. সিকান্দার-সবতেরা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের উদ্বোধন         বাউল কামাল পাশার ১২০তম জন্মবার্ষিকী পালিত         সিলেটে বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে ১জন নিহত         বগির জয়েন্ট খুলে হঠাৎ দুই ভাগ চলন্ত ট্রেন         বেফাঁস মন্তব্যে বহিষ্কৃত গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র রাবেল         গোয়াইনঘাটে ২২৫ বোতল বিদেশী মদসহ গ্রেপ্তার ৩         গোলাপগঞ্জে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে পল্লী বিদ্যুৎতের লাইনম্যানের মৃত্যু         ছাতকে রুহুল আমিন ফাউন্ডেশনের ৫ম বর্ষপূর্তি পালিত         নৌপথে ভারতে প্রবেশের দায়ে পাথর বোঝাই ট্রলার জব্দ         জৈন্তাপুরে স্কুলছাত্রের উপর চোরাকারবারীদের হামলা         ডা. সিকান্দার-সবতেরা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের যাত্রা শুরু সোমবার        

বিশ্বনাথে দুই যুবকের ৬ মাসের সশ্রম কারাদন্ড

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি : সিলেটের বিশ্বনাথে চার বছর আগে মারামারি মামলার রায়ের পর উচ্চ-আদালতে আপিল করেন আসামিরা। আপিলের ৪ বছর ৫ মাস পর আবারও সেই একই রায় দেওয়া হয়।

রায় পুনর্বহালের পর গত বুধবার (৬ অক্টোবর) সিলেটের চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট কাওসার আহমদের আদালতে আত্মসমর্পন করেন ৩২৩ ধারার অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত হওয়া যুবক শহিদ মিয়া (৩৯) ও সামছুর রহমান ওরফে সামছুল (২৭)।

ওইদিন বিচারকের নির্দেশে তাদের দু’জনকে জেলহাজতে পাঠানো হয়।

অভিযুক্ত শহিদ সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার সিংগেরকাছ পশ্চিমগাঁওয়ের মৃত শরিফ উল্লাহর ছেলে আর সামছুর রহমান ওরফে সামছুল একই গ্রামের আজমান আলীর ছেলে।

মামলার রায় সূত্রে জানাগেছে, ২০২১ সালের ১৮ আগস্ট অভিযুক্তদের আপিল মামলাটি খারিজ করে রায় পুনর্বহাল রেখে আবারও ওই দুই যুবককে অভিযুক্ত করে রায় দেন সিলেটের অতিরিক্ত দায়রা জজ ৩য় আদালতের বিজ্ঞ বিচারক মিজানুর রহমান ভূঁইয়া, (ফৌজদারী আপিল মামলা নং ১২৭/২০১৭ইং)।

রায়ে আপীলকারী ওই দু’জনকে আত্মসমর্পনের নির্দেশসহ দন্ডবিধির ৩২৩ ধারার অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করে তাদের প্রত্যেককে ৬ মাসের সশ্রম কারাদন্ড এবং ৫০০ টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও এক মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত করা হয়।

আর ঘটনার সঙ্গে সম্পৃক্ততা না থাকায় অপর আসামি আজমান আলী, আলমাছ আলী, শামীমুর রহমান শামীম, ইউনুছ আলী, আব্দুল মতিন, সুহেল মিয়া, জুয়েল আহমদ, আব্দুল লতিফ, দবির মিয়া ও হাজী আব্দুল মনাফসহ ১০জনকে খালাস প্রদান করা হয়।

তার আগে ২০১৭ সালের ৫মার্চ সিলেটের চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালাত নং ১ এর বিজ্ঞ বিচারক কাজী আব্দুল হান্নান ওই দু’জনকে অভিযুক্ত করে একই রায় প্রদান করেছিলেন।

২০১১ সালের ১৪ নভেম্বর অভিযুক্তদের প্রতিবেশী একই গ্রামের রহমান আলীর ছেলে রকিবুল ইসলাম সাজাপ্রপ্ত ওই দুই যুবকসহ ১২জনকে অভিযুক্ত করে সিলেটের চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট ৪নং আমলী আদালতে মামলা দায়ের করেন, (বিশ্বনাথ জিআর মামলা নং ২৩৫/২০১১ইং)।

এর পাঁচদিন পর আদালতের নির্দেশে ২০ নভেম্বর বিশ্বনাথ থানায় সেটি মামলা হিসেবে গ্রহণ করা হয়, (মামলা নং ২১)। মামলা দায়েরের একমাসের মাথায় ওই বছরের ২৭ ডিসেম্বর থানার তৎকালীন এসআই সালাহ উদ্দিন ১২জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন, (অভিযোগপত্র নং ২২)।

মামলার বাদী রকিবুল ইসলাম রায়ে সন্তুুষ্টি প্রকাশ করে বরেন, গত বুধবার অভিযুক্ত শহিদ ও সামছুল আত্মসমর্পন করলে আদালতের নির্দেশে তাদেরক জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

বাদী পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আতিকুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, আপিল মামলা খারিজ করে রায় পূনর্বহাল রাখা হয়েছে বলে তিনি জানান।

0Shares





Related News

Comments are Closed