Main Menu

এবার করোনা প্রতিরোধে আসছে ট্যাবলেট

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: ভ্যাকসিন আবিস্কারের পর এবার করোনাভাইরাস প্রতিরোধী ট্যাবলেট আবিস্কারের তথ্য জানা গেছে।

সিএনএন জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের মের্ক অ্যান্ড রিজব্যাক সংস্থার আবিস্কৃত এই ট্যাবলেট করোনায় আক্রান্ত রোগীর মৃত্যু ঝুঁকি কমাবে। পাশাপাশি হাসপাতালে ভর্তি না হয়ে বাড়িতে নিরাপদে চিকিৎসা নেওয়ার পথ সুগম করবে।

যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ সংস্থা এ ট্যাবলেটটির ব্যবহারের অনুমোদন এখনও দেয়নি। অনুমোদন পেলে এটিই হবে করোনার প্রথম ট্যাবলেট।

মের্ক অ্যান্ড রিজব্যাকের ওই ট্যাবলেটটির নাম ‘মলনুপিরাভির’।

মের্ক অ্যান্ড রিজব্যাক জানিয়েছে, শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্তের সঙ্গে সঙ্গেই এ ট্যাবলেট খাওয়া শুরু করে দেওয়া যেতে পারে।

জানা গেছে, মার্কিন সংস্থা মের্ক ‘মলনুপিরাভির’ নামের এক অ্যান্টিভাইটাল ওষুধ নিয়ে কাজ করেছে। ‘রিজব্যাক বায়োথার্পিউটিক্স’ নামের এক সংস্থার সঙ্গে হাত মিলিয়ে ওই ওষুধ তৈরি হয়েছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ওষুধটির ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল চলছে।

এশিয়ার দেশ জাপানেও সেই ট্রায়াল চালানো হচ্ছে।

কোম্পানির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রবার্ট ডেভিস বলেন, “কোভিডের চিকিৎসা নিয়ে সব আলোচনাই এ ওষুধ বদলে দেবে।”

মলনুপিরাভির তৈরি করা হয়েছে এমনভাবে যা ভাইরাসের জেনেটিক কোডে পরিবর্তন আনবে।

জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন পেলে মলনুপিরাভির হবে কোভিড চিকিৎসার প্রথম অনুমোদিত মুখে খাওয়ার অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ।

প্রতিদ্বন্দ্বী কোম্পানি রোশ ও ফাইজারও কোভিডের মুখে খাওয়ার ওষুধ তৈরির চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। তবে এখন পর্যন্ত তারা কেবল অ্যান্টিবডি ককটেল তৈরি করতে পেরেছে, যা নিতে হয় শিরায় ইনজেকশনের মাধ্যমে।

0Shares





Related News

Comments are Closed