Main Menu
শিরোনাম
সিলেটের দুই ল্যাবে আরো ১৬৪ জনের করোনা শনাক্ত         জকিগঞ্জে বিয়ের প্রলোভনে কিশোরীকে ধর্ষণ, গ্রেপ্তার ২         রাজনগরে সড়কে প্রাণ গেল ছাত্রলীগ নেতার         বিমানের সিলেট-লন্ডন সরাসরি ফ্লাইট শুরু         বিশ্বনাথে এমপি মোকাব্বির খানের গাড়িতে হামলা         শাবির ল্যাবে আরো ২২ জনের করোনা শনাক্ত         কমলগঞ্জে এক বৃদ্ধের মৃত্যু নিয়ে ধুম্রজাল         জৈন্তাপুরে ভারতীয় পাতার বিড়িসহ গ্রেফতার ১         গোয়াইনঘাটে ধর্ষণ চেষ্টার প্রতিবাদে মানববন্ধন         শ্রীমঙ্গলে স্ত্রীকে হত্যা করে স্বামীর আত্মহত্যা!         সিলেট এমসি কলেজের ছাত্রী পপির আত্মহত্যা         ধর্ষণ মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান কারাগারে        

বিকাশ অ্যাপে পরিবর্তন, প্রতারণার পথ বন্ধ

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিস বিকাশ অ্যাপে দীর্ঘদিন ধরে প্রতারণার শিকার হচ্ছেন গ্রাহকরা। কখনো উপহারের লোভ দেখিয়ে, কখনো ভুলে টাকা চলে গেছে আবার কখনো অ্যাকাউন্ট ভেরিভাই করার ফাঁদ। নানা উপায়ে প্রতারণা চললেও এতদিন কার্যকর কোনো পদক্ষেপ নেয়া হয়নি।

কার্যকর ব্যবস্থা না নেয়ায় বিকাশকে নানা সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়েছে। তবে এবার কার্যকর ব্যবস্থা নিয়েছে ব্রাক ব্যাংকের এ প্রতিষ্ঠান। বিকাশ এমন এক পরিবর্তন এনেছে, যাতে প্রতারণার পথ অনেকটাই বন্ধ হয়ে গেল।

বিকাশের এই পরিবর্তনের পেছনে বড় ভূমিকা রেখেছেন নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ও বর্তমান রেলপথ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মাহবুব কবির মিলন।

সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে নিজের ভেরিফায়েড পেজে তিনি এ তথ্য জানিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (৩০ জুলাই) বিকেলে মাহবুব কবির মিলন তার ভেরিফায়েড ফেসবুক অ্যাকাউন্টে লিখেছেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ। ধন্যবাদ bKash কর্তৃপক্ষকে। তাঁরা মাল্টি ডিভাইস লগইন বন্ধ করে দিয়েছেন। অর্থাৎ একটি একাউন্ট থেকেই আপনি এখন ট্রানজেকশন করতে পারবেন। ওটিপি পিন নাম্বার দিয়েও আর অন্য ডিভাইস থেকে একাউন্ট চালাতে পারবেন না।’

‘প্রতারকরা আপনার ওটিপি পিন নিয়ে আপনার একাউন্ট থেকে টাকা হাতিয়ে নিতে পারবে না। আপাতত বন্ধ হয়ে গেল প্রতারকদের রাস্তা। সামান্য চেষ্টা করেছিলাম। বিকাশ গ্রাহকদের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন তা প্রমাণিত হল। সন্মান দিয়েছেন অংসখ্য গ্রাহকদের। এজন্যই বলেছিলাম, আমরা পারি না এমন কিছু নেই। রক্ষা পেল গ্রাহকদের কষ্টার্জিত অর্থ প্রতারকদের কবল থেকে। এখন কিন্তু আপনার পালা। একাউন্ট সহ মোবাইল আবার কারো হাতে দিয়ে দিয়েন না।’

0Shares





Comments are Closed