সর্বশেষ

দুই মাথা, তিন চোখ, চার শিংয়ের গরু

বৈশাখী নিউজ ২৪ ডটকম । প্রকাশিতকাল : ১১:০৬:৪৫,অপরাহ্ন ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭ | সংবাদটি ৫১ বার পঠিত

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: দুই মাথা, তিন চোখ ও চার শিং ওয়ালা অদ্ভুত আকৃতির গরু ‘রাজা’কে ঘিরে মানুষের কৌতূহলের শেষ নেই।

গরু ‘রাজা’র দর্শন ফি ১০ টাকা নির্ধারণের পরও কৌতূহল কমেনি, বরং আরও যেন বেড়েছে। এ দৃশ্য রাজশাহী মহানগরীর শেখপাড়া মিলন মন্দিরের পশ্চিমের পাশে একটি বাড়ির।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ‘রাজা’র মালিক মঈন উদ্দিন। তার বাড়ি পার্শ্ববর্তী চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার নাচোল উপজেলার দোগাছি গ্রামে। গত ২৫ সেপ্টেম্বর রাজাকে রাজশাহী শহরে নিয়ে আসেন শেখপাড়ার তপন ও সাধন কুমার ঘোষ। সেই থেকে চারদিকে বাঁশের খুঁটি পুতে রাজাকে ঘিরে রেখে উৎসুক দর্শনার্থীদের নিকট থেকে আদায় করা হচ্ছে ১০ টাকা ফি।

গরুর মালিক মঈন উদ্দিন জানান, বাসার খামারে গরু পালন করেন তিনি। একটি গাভী অদ্ভুত আকৃতির বাছুর (দুইটি মাথা, তিনটি চোখ ও চারটি শিং) জন্ম দেয়। বাছুরটির জন্মের পরে বাড়ির সকলে অবাক হয়ে গিয়েছিল। প্রথমে মনে হয়েছিল বাছুরটি বাঁচানো যাবে না। বাছুরটি বাঁচিয়ে রাখতে পরিবারের সদস্যরা অনেক সেবাযত্ন করেন। আদর করে নাম রাখা হয় ‘রাজা’। দুই মাথা-তিন চোখ-চার শিংয়ের গরু রাজার বর্তমান বয়স ৩ বছর ১০ মাস।

তিনি আরও বলেন, ‘রাজা পরিবারের সন্তানের মতো। নিজের সন্তানের মতোই তাকে সকলে ভালোবাসেন। বাধ্য সন্তানের মতো উঠে দাঁড়াতে বললে সেও উঠে দাঁড়ায়। আবার শুতে বললে শুয়ে যায়। ‘

মঈন উদ্দিন জানান, ‘জন্মের বছরখানেক পরেই গরু রাজাকে বিক্রির সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। কিন্তু রাজাকে দেখতে উৎসুক মানুষের ভিড় দেখে তাকে বিক্রি করা হয়নি। তবে প্রতিদিন তার পেছনে খাবার বাবদ খরচ করতে হয় আড়াইশ’ টাকা। তাই রাজাকে দেখার ফি হিসেবে ১০ টাকা করে নেয়া হয়।’






Comments are Closed