Main Menu

কিডনি দিয়েও বাঁচাতে পারছেন না মেয়েকে

বৈশাখী নিউজ ২৪ ডটকম: দীর্ঘ দিন যাবত মরন ব্যাধি কিডনি রোগে আক্রান্ত বিএ প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী সৈয়দা লিমা বেগম রিমা। তার দুইটি কিডনিই অচল। ইতিমধ্যে মেয়ের পাশে দাঁড়িয়েছেন তার বাবা। মেয়েকে বাঁচাতে সৈয়দা লিমা বেগমের পিতা শাহ সৈয়দ শফিকুল ইসলাম চিশতী নিজের একটি কিডনি দান করতে ইচ্ছুক। তবে বাঁধা হয়ে দাঁড়িয়েছে আর্থিক অস্বচ্ছলতা।

লিমা সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলার বাঘা ইউনিয়নের তুরুকভাগ গ্রামের সৈয়দ শফিকুল ইসলামের মেয়ে। গত ১ জানুয়ারি সিলেটের বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হলে অনেকেই এগিয়ে আসেন তাদের পাঁশে। এ পর্যন্ত দেশ-বিদেশের বিভিন্ন মাধ্যম থেকে ৭ লক্ষ টাকার ফান্ড তৈরি হয়েছে, তবে তার শরিরে নতুন কিডনি প্রতিস্থাপন করতে প্রায় ১০ থেকে ১৫ লক্ষ টাকার প্রয়োজন। চিকিৎসার সম্পুর্ণ টাকা যোগাড় না হওয়ায় অপেক্ষার প্রহর গুনতে হচ্ছে লিমাকে।

সৈয়দা লিমা দীর্ঘ দিন যাবৎ সিলেট ওসমানী হাসপাতালে ডা. আলমগীর চৌধুরী ও শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালে ডা. নাজমুস সাকিবের কাছে চিকিৎসা নিয়েছেন। বর্তমানে ডা.আলমগীর চৌধুরীর (কিডনি বিশেষজ্ঞ) কাছে চিকিৎসা নিচ্ছেন। ডাক্তার জানিয়েছেন এখন তাকে বাঁচাতে হলে দ্রুত শরীরে নতুন কিডনি প্রতিস্থাপন করতে হবে, যা অত্যন্ত ব্যায়বহুল।

তাই লিমার পরিবার সমাজের বিত্তবান মানুষের নিকট সহযোগীতার আবেদন জানিয়েছেন। সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা, সৈয়দ রাসেল আহমদ, একাউন্ট নাম্বার (০০২৩১২১০০০৪৯৬৩৫) সাউথইস্ট ব্যাংক, বন্দর বাজার শাখা, সিলেট। বিকাশ (০১৭২৬০৯৬২৭৮-০১৭৪৫১৯৭৮২৪ পার্সোনাল)। এছাড়াও লিমার ভাই সৈয়দ রাসেল আহমদের ০১৭২৬০৯৬২৭৮ এই মোবাইলে যোগাযোগ করা যাবে।






Related News

Comments are Closed