Main Menu

মোবাইলে প্রেম করে গণধর্ষণের শিকার নারী

প্রকাশিত: ১০:২০:৩২,অপরাহ্ন ০৯ অক্টোবর ২০১৮ | সংবাদটি ১৭ বার পঠিত

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: মোবাইল ফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠার পর দিনাজপুরের এক নারী কুয়াকাটায় গিয়ে গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ধর্ষণের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ। আটকরা হলেন- কুয়াকাটার যমুনা গেস্ট হাউসের ম্যানেজার আলমগীর (২৫), সাইফুল (২৮), ‘কথিত প্রেমিক’ খলিলসহ (৩৫) আরো দুইজন।

এ বিষয়ে প্রেস ব্রিফিং করেছেন পুলিশ সুপার মইনুল হাসান।

পুলিশ জানায়, মোবাইল ফোনে কুয়াকাটার খলিলের সাথে পরিচয় হয় দিনাজপুরের বিরল উপজেলার দৌলতপুর গ্রামের দুই সন্তানের জননী ওই নারীর। তাকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে কুয়াকাটায় নিয়ে আসেন খলিল।

গত শনিবার দিনাজপুর থেকে কুয়াকাটায় এসে ওই নারী যমুনা গেস্ট হাউসে ওঠেন। সেখানে গেস্ট হাউসের ম্যানেজার সাইফুল ও আলমগীর তাকে রাতভর ধর্ষণ করেন।

পরে কথিত প্রেমিক খলিল রবিবার তাকে বেঙ্গল গেস্ট হাউসে নিয়ে যায়। সেখানে বেঙ্গল গেস্ট হাউসের ম্যানেজারের সহায়তায় তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন খলিল।

বিষয়টি পুলিশ টের পেয়ে ওই নারীকে উদ্ধার করে মহিপুর থানায় নিয়ে যান এবং ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে পাঁচজনকে আটক করে।






Related News

Comments are Closed