Main Menu
শিরোনাম
কুলাউড়ায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে স্কুলছাত্রের মৃত্যু         শ্রীমঙ্গলে কলা পাতা দিয়ে ঢাকা নারীর লাশ         কোম্পানীগঞ্জে পাথরের গর্তে নেমে শ্রমিক নিহত         শ্রীমঙ্গলে চলতি মৌসুমের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড         বিশ্বনাথে ৬ জুয়াড়ি আটক         শ্রীমঙ্গলে ধরা পড়ল ৮ ভূয়া পিইসি পরীক্ষার্থী         ওসমানীনগরে কিশোরীর আত্মহত্যা         প্রবাসী স্ত্রীকে লাইভে রেখে স্বামীর আত্মহত্যা!         বিশ্বনাথের রামপাশা-বৈরাগীবাজার রাস্তার বেহাল দশা         ফেঞ্চুগঞ্জে ট্রেনে কাটা পড়ে বৃদ্ধের মৃত্যু         বাহুবলে ট্রাকচাপায় স্কুলছাত্র নিহত         সিলেট সফরে ত্রি সিষ্টার কেয়ার ইউকে’র নেতৃবৃন্দ        

নেপালের কাছে হেরে বিদায় বাংলাদেশ

প্রকাশিত: ৯:৪০:৪৭,অপরাহ্ন ০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | সংবাদটি ৮৮ বার পঠিত

স্পোর্টস ডেস্ক : সাফ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে নেপালের কাছে ২-০ গোলে হেরে বিদায় নিল বাংলাদেশ। বাংলাদেশের এই পরাজয়ে সেমিফাইনালে উঠে গেল পাকিস্তান ও নেপাল।

সাফ ফুটবলের এবারের আসরটা বাংলাদেশ শুরু করেছিল স্বপ্নের মতো। প্রথম দুই ম্যাচে ভুটান ও পাকিস্তানের বিপক্ষে জয় পেয়েছে। তবে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করার দিনে দুর্ভাগ্যজনকভাবে নেপালের বিপক্ষে হেরে গিয়ে বিদায় নিল স্বাগতিকরা।

শনিবার (৮ সেপ্টেম্বর) বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে তিন পয়েন্ট পাওয়ার লক্ষ্যে নেপালের বিপক্ষে মাঠে নামে বাংলাদেশ। প্রথমার্ধে আক্রমণও করে বেশ কিছু। কিন্তু গোলরক্ষকের ভুলে প্রথমার্ধে গোল খেয়ে ১-০ ব্যবধানে পিছিয়ে পড়ে বাংলাদেশ। খেলার একবারে শেষ মুহূর্তে এসে ব্যবধান ২-০ শূন্য করে নেপাল।

২৪ মিনিটে নেপাল ফাউল করলে ফ্রি কিক পায় বাংলাদেশ। মামুনুলের শট ভরতের হাতে লাগলে দ্বিতীয় ফ্রি কিক থেকে মিনিটে ওয়ালি ফয়সালের শট ক্রসবারের অনেক উপর দিয়ে চলে যায়।

আধ ঘণ্টা পার হওয়ার কিছুক্ষণ পরই অবাক করা গোলে এগিয়ে যায় নেপাল। ৩৩ মিনিটে বিমল ঘারতি মাগারের ফ্রি কিক বাংলাদেশের জালে ঢোকে গোলরক্ষক শহীদুল আলমের বোকামিতে। লম্বা কিকটি উঁচু দিয়ে এসেছিল, বাংলাদেশি গোলরক্ষক ফিস্ট করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তার হাত ফসকে জালে জড়ায় বল। এই গোলেই স্বাগতিকদের আত্মবিশ্বাস চুরমার হয়ে যায়।

বিরতির পর গোল শোধে মরিয়া ছিল বাংলাদেশ। কিন্তু ৫৩ মিনিটে তাদের জালে আরেকবার বল বল জড়ানোর সুযোগ তৈরি করেছিল নেপাল। ভারতের বাঁ পায়ের শট রুখে দেন শহীদুল। ফিরতি শট গোলপোস্টের পাশ দিয়ে চলে যায়। তার দুই মিনিট আগে বিমলের আরেকটি ফ্রি কিক এবার ঠেকাতে সফল হন শহীদুল।

৬৪ মিনিটে বাংলাদেশের রক্ষণভাগের চাপে পড়ে লক্ষ্যে শট নিতে পারেনি নেপাল। ৭০ মিনিটে ওয়ালির ক্রস শাখাওয়াত রনি হেড করেছিলেন। কিন্তু ক্রসবারের ঠিক পেছনে জালের উপর বল পড়ে।

রনি ৭৬ মিনিটে আবারও বক্সের মধ্যে বল পান। কিন্তু তার হেড ঠিকভাবে নিতে দেননি নেপালের ডিফেন্ডাররা। ৩ মিনিট পর আবারও বাংলাদেশের ১০ নম্বর জার্সিধারী শট নেন লক্ষ্যে। ছোট বক্সের কিছুটা দূর থেকে রনি বাঁ পায়ে শট নিলেও পোস্টে বল রাখতে পারেননি।

৮২ মিনিটে নবযুগের ক্রসে সুজল জাল খুঁজে পান। কিন্তু অফসাইডের কারণে নেপালের গোলটি বাতিল হয়। ৬ মিনিট পর সুনীল বালের ডান দিক থেকে নেওয়া শট দারুণ সেভ করেন শহীদুল। কিন্তু নির্ধারিত সময় শেষ হওয়ার এক মিনিট আগে নবযুগ দুর্দান্ত গোল করে ব্যবধান বাড়ান।

শনিবার নেপালের বিপক্ষে ন্যূনতম ড্র করলেই গ্রুপ সেরা হয়ে সেমি ফাইনালে চলে যেত বাংলাদেশ। কিন্তু বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে ২-০ গোলে হেরে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নিল স্বাগতিকরা।

‘এ’ গ্রুপে থেকে বাংলাদেশের সমান দুটি করে ম্যাচ জিতেও গোল গড়ে এগিয়ে থেকে সেমিতে চলে গেল নেপাল ও পাকিস্তান।






Related News

Comments are Closed