Main Menu
শিরোনাম
‘অসমাপ্ত উন্নয়ন সমাপ্ত করতে নৌকা মার্কায় ভোট দিন’         সিলেট-২ আসনে প্রার্থীতা ফিরে পেলেন মুহিবুর রহমান         সিকৃবিতে শোকর‌্যালি ও আলোক প্রজ্জ্বলন         ধানের শীষে ভোট দিয়ে দুঃশাসনের জবাব দিন: শফি চৌধুরী         বিশ্বনাথে বধ্যভূমি স্মৃতিসৌধে প্রশাসনের শ্রদ্ধাঞ্জলি         সিলেট জেলা বিএনপির উপদেষ্টা আব্দুল হান্নানের ইন্তেকাল         দক্ষিণ সুরমা উপজেলা প্রশাসনের শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন         ইলিয়াসপত্নী লুনার প্রার্থীতা স্থগিতে এলাকাবাসীর প্রতিক্রিয়া         ৯৯৯-এ কল; মধ্যরাতে অসুস্থ দুই নারীর প্রতি পুলিশের মানবিকতা!         ‘মানুষ লুটপাটকারীদের মিথ্যা আশ্বাসে আর বিভ্রান্ত হবেনা’         বিশ্বনাথে হঠাৎ থেমে গেল নির্বাচনী আমেজ!         সুনামগঞ্জে পরিযায়ী পাখি বিক্রেতাকে ৪ মাসের দন্ড        

বিশ্বের সবচেয়ে নিঃসঙ্গ মানুষ যিনি

প্রকাশিত: ১১:৫০:৩৮,অপরাহ্ন ২১ জুলাই ২০১৮ | সংবাদটি ১০৫ বার পঠিত

বৈশাখী নিউজ ডেস্ক: একেবারেই বিরল এক ভিডিও ফুটেজে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর একজন মানুষকে দেখা যাচ্ছে, বলা হচ্ছে, তিনি বিশ্বের সবচেয়ে নিঃসঙ্গ মানুষ। ব্রাজিলের অ্যামাজনে ২২ বছর ধরে ৫০ বছর বয়সী মানুষটি একা বাস করছে। তার গোত্রের বাকিরা সবাই খুন হওয়ার পর থেকেই তার একাকী জীবনের শুরু।

ব্রাজিল সরকারের ইনডেজিনাস এজেন্সি ফুনাই এই ভিডিওটি ধারণ করেছে। দূর থেকে তোলা সেই অস্পষ্ট ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, একজন পুরুষ একটি কুড়াল দিয়ে গাছ কাটছেন।

বিবিসি বাংলা বলছে, ভিডিওটি বিশ্বের নানা স্থানে শেয়ার করা হয়েছে কিন্তু এখানে আরো অনেক বিষয় রয়েছে যেগুলো আসলে খালি চোখে ধরা পড়ছে না।

কেন তার ভিডিও করা হলো?

ফুনাই বলছে, ১৯৯৬ সাল থেকে তাকে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। বেশ কয়েকটি কারণ রয়েছে এর পেছনে। প্রথমত, এটা নিশ্চিত হওয়া যে সে বেঁচে আছে, দ্বিতীয়ত, কোন কোন এলাকায় সে ঘোরাফেরা করে সে স্থানগুলো চিহ্নিত করা।

ব্রাজিলের সংবিধান অনুযায়ী প্রত্যেকটি আদিবাসীদের জন্য ভূমির বা জমির অধিকার রয়েছে। লোকটির রনডোনিয়ার উত্তর-পশ্চিমের দিকে চলাচল রয়েছে।

তাই ওই এলাকাকে সংরক্ষিত করার জন্য সরকারের নতুন করে আদেশ দেয়ার প্রয়োজন ছিল, আর সে কারণেই ভিডিওটি ধারণ করা হয়।

এই ব্যক্তি সম্পর্কে আর কী জানা যাচ্ছে?

খুব কমই জানা যাচ্ছে এই লোকটি সম্পর্কে। যদিও তাকে নিয়ে নানা ধরনের গবেষণা প্রতিবেদন রয়েছে, সংবাদমাধ্যমে প্রতিবেদন হয়েছে কিন্তু বিস্তারিত কিছুই জানা যায়নি।

বলা হচ্ছে, এই মানুষটার সাথে বাইরে থেকে কখনো কেউ যোগাযোগ করতে পারেনি বা কথা বলেনি।

তার গোষ্ঠীর নাম কেউ জানে না এবং তারা কোন ভাষায় কথা বলতো সেটাও কেউ জানে না।

১৯৯৫ সালে কৃষকরা তাদের ওপর হামলা করলে এই ব্যক্তি ছাড়া তার গোত্রের সবাই নিহত হয়।






Related News

Comments are Closed